সাভারে শ্রমিক-পুলিশ সংঘর্ষ, আহত অর্ধশতাধিক

SHARE

সাভারের হেমায়েতপুরে বেতন বৃদ্ধিসহ একাধিক দাবিতে টানা তৃতীয় দিনের মতো বিক্ষোভ করেছে বেশ কয়েকটি তৈরি পোশাক কারখানার শ্রমিকেরা। মঙ্গলবার সকালে হেমায়েতপুরের পদ্মার মোড়ে বাগবাড়ি এলাকায় এই শ্রমিক বিক্ষোভের ঘটনা ঘটে।

এ সময় বিক্ষুব্ধ শ্রমিকেরা সড়ক অবরোধ করে টায়ার জ্বালিয়ে বিক্ষোভ করে। পুলিশ তাদের সরিয়ে দেয়ার চেষ্টা করলে সংঘর্ষ, ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও টিয়ারশেল নিক্ষেপের ঘটনা ঘটে। তিন ঘন্টাব্যাপী সংঘর্ষে শ্রমিক-পুলিশসহ আহত হয়েছে অর্ধশতাধিক।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, হেমায়েতপুরের পদ্মার মোড়ে বাগবাড়ি এলাকায় স্ট্যান্ডার্ড গ্রুপের শামস স্টাইল ওয়্যারস লিমিটেডের শ্রমিকেরা সকালে কাজে যোগ না দিয়ে কারখানার পাশে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ শুরু করে। এক পর্যায়ে তাদের সঙ্গে পার্শ্ববর্তী দিপ্ত অ্যাপারেলস কারখানাসহ বেশ কয়েকটি কারখানার শ্রমিকেরা যোগ দেন। পরে তারা হেমায়েতপুর-শ্যামপুর সড়কে টায়ার জ্বালিয়ে বিক্ষোভ করতে থাকে। এ সময় পুলিশ তাদের ছত্রভঙ্গ করতে ধাওয়া দেয়। এতে উভয় পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ ও ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষে পুলিশসহ আহত হয় অর্ধশতাধিক। প্রায় ৩ ঘণ্টাব্যাপী সংঘর্ষ চলাকালে গুলির শব্দে পুরো এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় পুলিশ টিয়ারশেল, রাবার বুলেট, জলকামান ও সাজোয়াযান নিয়ে শ্রমিকদের প্রতিহত করার চেষ্ট চালায়। বর্তমানে ওই এলাকায় অতিরিক্ত শিল্প পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

সাভার ট্যানারি ফাঁড়ির ইনচার্জ পুলিশ পরিদর্শক গোলাম নবী জানান, সকালে শ্রমিকেরা রাস্তায় বেড়িয়ে আসার চেষ্টা করে। পুলিশ তাদের বাঁধা দিলে কিছু অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেছে। বর্তমানে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।