মহাজোটের মনোনয়ন তালিকা আনুষ্ঠানিকভাবে প্রকাশ করা হবে আজ : ওবায়দুল কাদের

SHARE

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, আজ সোমবার বিকেল সাড়ে তিনটায় আনুষ্ঠানিকভাবে মহাজোটের তিনশ’ আসনের দলীয় মনোনয়নের তালিকা প্রকাশ করা হবে।
তিনি বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ের দলীয় কার্যালয়ে রোববার অনানুষ্ঠানিকভাবে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার স্বাক্ষর সম্বলিত প্রার্থীদের দলীয় মনোনয়নের চিঠি দেওয়া হয়েছে। যে সকল আসনে জোটের শক্তিশালী প্রার্থী নেই বা আওয়ামী লীগের শক্তিশালী প্রার্থী রয়েছে সে আসনগুলোতেই দলীয় প্রার্থীদের মনোনয়নের চিঠি দেওয়া হয়েছে।’
সেতুমন্ত্রী কাদের আরো বলেন, জোটের শরীকদের ৬৫ থেকে ৭০টি আসন দেয়া হবে। তবে এ সংখ্যা ৭০’র বেশি হবে না।
ওবায়দুল কাদের রোববার সকালে রাজধানীর ধানমন্ডিস্থ আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলীয় মনোনয়নের সর্বশেষ পরিস্থিতি নিয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন।
এ সময় আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল-আলম হানিফ এমপি, সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী এমপি, ব্যারিস্টার মুহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, উপ-দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়–য়া, কেন্দ্রীয় কার্য নির্বাহী সংসদের সদস্য এস এম কামাল হোসেন ও মারুফা আক্তার পপি উপস্থিত ছিলেন।
সেতুমন্ত্রী বলেন, আসন বন্টন নিয়ে শরীকদের সঙ্গে আলোচনা চলছে। ২৩০টি আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী চুড়ান্ত করা হয়েছে। এ আসনগুলোতেই দলীয় প্রার্থীদের মনোনয়নের চিঠি দেয়া হয়েছে।
তিনি বলেন, তবে ২৩০টি আসনে দলীয় মনোনয়নের চিঠি দেওয়া হলেও প্রয়োজনে প্রার্থীর ক্ষেত্রে পরিবর্তন আসতে পারে। তাই মনোনয়নের চিঠি দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে প্রার্থীদের কাছ থেকে প্রার্থীতা প্রত্যাহারের স্বাক্ষর সম্বলিত সম্মতিপত্রও রাখা হয়েছে।
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাদের বলেন, বিএনপি সুপরিকল্পিতভাবে নির্বাচন কমিশন (ইসি), প্রশাসন, পুলিশের বিরুদ্ধে একের পর এক আক্রমণাত্মক বক্তব্য দিয়ে যাচ্ছে। তাদের মতলব হচ্ছে নির্বাচন কমিশন (ইসি), প্রশাসন ও পুলিশকে বিতর্কিত করে দেশে একটি অস্থিতিশীল পরিবেশ তৈরি করে ঘোলা পানিতে মাছ শিকার করা।
দলীয় মনোনয়নের চিঠি পাওয়াদের ক্ষেত্রে পরিবর্তন আসতে পারে কিনা জানতে চাইলে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক কাদের বলেন, প্রয়োজনে পরিবর্তন আসতে পারে। সময় ও পরিস্থিতি ডিমান্ড করলে এ সকল আসনেও পরিবর্তন আসতে পারে।
অপর এক প্রশ্নের জবাবে কাদের বলেন, আগামী জাতীয় নির্বাচনে বিএনপি পরাজিত হবেই। কারণ, দেশের মানুষ স্বাধীনতা বিরোধী শক্তির সঙ্গে থাকতে পারে না। তারা মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে, উন্নয়নের পক্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকেই বিজয়ী করবে। বিএনপি ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচনে প্রমাণ পাবে।
তিনি বলেন, বিএনপি-জামায়াত আবার ক্ষমতায় এলে ২০০১ সালের চেয়েও ভয়ংকর রূপে আর্বিভূত হবে। নয়াপল্টনের তাদের দলীয় কার্যালয়ের সামনে মনোনয়ন ফরম বিতরণকালে বিএনপির নেতা-কর্মীরা পুলিশের ওপর হামলা চালিয়ে, পুলিশকে আহত করে, পুলিশের গাড়িতে আগুন দিয়ে ও গাড়ীর ওপর নৃত্য করে তারা তা দেখিয়ে দিয়েছে।