কিশোরগঞ্জ বাস-অটোরিকশা মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ৩

SHARE

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি.

কিশোরগঞ্জ-ভৈরব মহাসড়কের কুলিয়ারচর উপজেলার কোনপাড়া এলাকায় যাত্রীবাহী বাস ও সিএনজিচালিত অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষে ৩ জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় ২ জন আহত হয়েছেন।

এ ঘটনার পর বিক্ষুব্ধ জনতা বাসটিতে আগুন লাগিয়ে দিলে ভৈরব থেকে দমকল বাহিনীর লোকজন এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।
বুধবার বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে এ মর্মান্তিক দুর্ঘটনা ঘটে।
নিহতরা হলেন- বাজিতপুর উপজেলার পুরানখলা গ্রামের ইদু মিয়ার ছেলে সিএনজি অটোরিকশাচালক আবুল হোসেন (১৮), ভৈরব উপজেলার মিরেরচরের আখতার হোসেনের ছেলে সিএনজি অটোরিকশা যাত্রী সবজি ব্যবসায়ী বাহার মিয়া (৫০) ও একই এলাকার হাফেজ মোশারফ আলী ( ২০)।
ভৈরব হাইওয়ে থানা পুলিশ খবর পেয়ে নিহতদের লাশ থানায় নিয়ে আসে। আহতদের ভৈরব হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয়। পুলিশ বাস ও সিএনজিটি উদ্ধার করে ভৈরব হাইওয়ে থানায় নিয়ে আসে।
ভৈরব হাইওয়ে পুলিশের ওসি মো. তৌফিকুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
তিনি জানান, সিএনজিচালিত অটোরিকশাটি ভৈরব থেকে কিশোরগঞ্জ যাচ্ছিল। অটোরিকশাটি কুলিয়ারচর উপজেলার কোনপাড়া এলাকায় পৌঁছালে যাতায়াত প্রাইভেট সার্ভিস নামের একটি যাত্রীবাহী বাসের সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই চালক ও ২ যাত্রী নিহত হন।
ভৈরব হাইওয়ে থানার ওসি জানান, দুর্ঘটনার খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে। জনতা বাসে আগুন দিলে ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা আগুন নেভাতে সক্ষম হয়।